1. ashik@amaderbanglarsangbad.com : Staf Reporter : Staf Reporter
  2. akhikbd@amaderbanglarsangbad.com : Ashikur Rahman : Ashikur Rahman
  3. babul6568@gmail.com : অনলাইন ডেক্স : অনলাইন ডেক্স
  4. admin@amaderbanglarsangbad.com : belal :
  5. lima@webcodelist.com : Khadizatul kobra Lima : Khadizatul kobra Lima
  6. rkp.jahan@gmail.com : Staf Reporter : Staf Reporter
  7. abc@solarzonebd.com : Staf Reporter : Staf Reporter
  8. tahershaghata@gmail.com : Abu Taher : Abu Taher
শেখ রেহেনার জন্মদিনে মোঃ ইসমাইল হোসেনের শুভেচ্ছা - আমাদের বাংলার সংবাদ




শেখ রেহেনার জন্মদিনে মোঃ ইসমাইল হোসেনের শুভেচ্ছা

  • সংবাদ সময় : Sunday, 13 September, 2020
  • ৫২ বার দেখা হয়েছে
 তুষার মাহমুদ:
জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিবের ছোট মেয়ে ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ছোট বোন শেখ রেহেনার ৬৬ তম জন্মদিন আজ। রোববার (১৩ সেপ্টেম্বর) গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়ায় ১৯৫৫ সালের এই দিনে তিনি  জন্মগ্রহণ করেন।তাঁর ৬৬তম জন্মদিনে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন ঢাকা মহানগর উত্তর যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক মোঃ ইসমাইল হোসেন।
এক শুভেচ্ছা বার্তায় তিনি বলেন    বঙ্গবন্ধুর কনিষ্ঠা কন্যা শেখ রেহেনা তাঁর সহোদরা বোন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার একজন বিশ্বস্ত সহযোগী।২০০৭-২০০৮ সালে তত্ত্বাবধায়ক সরকার প্রধান ফখরুদ্দীন আহমদের জরুরী অবস্থা চলাকালীন সময়ে শেখ হাসিনা গৃহবন্দী হন। ঐ সময় শেখ রেহানা তার সহোদরা বড় বোন শেখ হাসিনা’র পক্ষে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের নেতৃত্বে হাল ধরেন। ২০০৮ সালের বাংলাদেশের ৯ম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ সংখ্যাগরিষ্ঠতা অর্জন করে। এবং শেখ হাসিনা বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী হিসেবে অধিষ্ঠিত হন।আর এই  রাষ্ট্রীয় দায়িত্বে সহযোগিতা করে থাকেন  শেখ রেহেনা।আমি তাঁর ব্যক্তিগত, পারিবারিক ও রাজনৈতিক জীবনের সর্বাঙ্গীণ মঙ্গল কামনা করছি।
 এছাড়াও ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট ঘাতকরা সপরিবারে যখন বঙ্গবন্ধুকে নির্মমভাবে হত্যা করে সে সময় শেখ রেহেনা বড় বোন শেখ হাসিনার স্বামী ড. এম এ ওয়াজেদ মিয়ার কর্মস্থল জার্মানিতে ছিলেন। বঙ্গবন্ধুকে হত্যার পর শেখ হাসিনা ও শেখ রেহেনা ভারতে রাজনৈতি আশ্রয় নেন। শেখ রেহেনা পরে পরিবার নিয়ে লন্ডনে বসবাস শুরু করেন।
শেখ হাসিনা ১৯৮১ সালে দেশে ফিরে আওয়ামী লীগের হাল ধরেন। দেশের সবচেয়ে বড় রাজনৈতিক পারিবারের সন্তান হয়েও সক্রিয় রাজনীতির সামনের সারিতে আসেননি শেখ হাসিনা। তবে মুক্তিযুদ্ধের চেতনা ও গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠার আন্দোলন-সংগ্রামে আওয়ামী লীগ সভানেত্রী শেখ হাসিনাসহ সক্রিয় রাজনীতিবিদদের অনুপ্রেরণা ও সহযোগিতা দিয়েছেন। জনহিতৈষী কাজে সব সময়েই ভূমিকা রেখে চলেছেন তিনি।অধ্যাপক ড. শফিক আহমেদ সিদ্দিক ও শেখ রেহfনা দম্পতির তিনি ছেলেমেয়ে। তাদের বড় মেয়ে টিউলিপ সিদ্দিক ব্রিটিশ পার্লামেন্টে লেবার পার্টির একজন এমপি। ছেলে রাদওয়ান সিদ্দিক ঢাকায় একটি আন্তর্জাতিক সংস্থায় কর্মরত। আর ছোট মেয়ে আজমিনা সিদ্দিক লন্ডনে কন্ট্রোল রিস্কস নামে একটি প্রতিষ্ঠানের গ্লোবাল রিস্ক অ্যানালাইসিস সম্পাদক।

সংবাদটি শেয়ার করুন

এই ধরনের আরো সংবাদ